বুধবার, ২৬ জুন ২০২৪, ০৩:১৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
দেবহাটা উপজেলা চেয়ারম্যান আলফা কারাগারে সাতক্ষীরা সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও ভাইস-চেয়ারম্যানদের শপথ গ্রহণ রাজধানীতে ট্রেনে কাটা পড়ে সাতক্ষীরার যুবক নিহত খেদাপাড়া বাবা বৈদ্যনাথ ধাম মন্দিরের যজ্ঞানুষ্ঠানে সাবেক প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য্য চট্টগ্রামে ট্রাক-টেম্পোর সংঘর্ষে নিহত ২ বোয়ালখালীতে টেম্পোর ধাক্কায় ভ্যানচালক আহত মোল্লারহাট আবুল খায়ের সেতুর টোল ইজারা প্রদানে কারচুপির অভিযোগ সাতক্ষীরা ইউপি চেয়ারম্যানদের পক্ষ থেকে উপজেলা চেয়ারম্যান ও ভাইস-চেয়ারম্যান কে ফুলেল শুভেচ্ছা পুরনো বিআরটিসি বাসের ফাঁদে পঞ্চগড় বাসি খেদাপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে প্রার্থীতা ঘোষনা গাজী শহিদুল ইসলামের

অফিস সহায়ক ও আয়া পদে নিয়োগে অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে সাতক্ষীরা তালাতে।

রিপোর্টার নামঃ
  • আপডেট সময় বুধবার, ১৫ জুন, ২০২২
  • ৩৯০ বার পঠিত

মোঃ জমির উদ্দিন
ভ্রাম্যমাণ প্রতিনিধি তালা সাতক্ষীরাঃ

সাতক্ষীরার তালা উপজেলাধীন শাহাজাতপুর ইউসুফ স্মৃতি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের নৈশ প্রহরী, অফিস সহায়ক ও আয়া পদে নিয়োগে অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে।

অভিযোগ উঠেছে স্কুলের প্রধান শিক্ষক ও সভাপতি অন্য প্রার্থীদের না জানিয়ে নিজেদের পছন্দের প্রার্থীকে নিয়োগ দেওয়ার।

জানা গেছে, বিগত ১৬মার্চ ২০২২ তারিখে ওই বিদ্যালয়ের নৈশ প্রহরী, অফিস সহায়ক ও আয়া পদে প্রধান শিক্ষক ও সভাপতির পছন্দমত নৈশ প্রহরী পদে সুমন গাজী, অফিস সহায়ক পদে সাইফুল ইসলাম ও আয়া পদে সেলিনা খাতুন কে নিয়োগ দেওয়া হয়। অপর চাকরি প্রার্থীরা অভিযোগ করেন, তাদের না জানিয়ে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল হক মোড়ল ও বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি এস এম শামসুজ্জামান সরদার গোপনে এ নিয়োগ দিয়েছেন।
এ নিয়োগে অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগে গত ২৪ফেব্রুয়ারি ‘২২ আবেদনকারীরা মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরসহ বিভিন্ন দফতরে অভিযোগপত্র জমা দেন নিয়োগ বঞ্চিতরা।
এছাড়াও ওই নিয়োগের চাকুরিপ্রার্থী আমেনা খাতুন তালা উপজেলা সহকারী জজ আদালত, সাতক্ষীরাতে গত ৩০মার্চ ‘২২ তারিখে প্রধান শিক্ষক ও ম্যানেজিং কমিটির সভাপতিসহ ১২ জনের নামে অভিযোগ করেন (মামলা নম্বরঃ দেওয়ানি – ৭০/২২)।
চাকুরী প্রত্যাশী আমেনা খাতুন এ প্রতিবেদককে জানান, আমাদের না জানিয়ে প্রধান শিক্ষক আব্দুল হক মোড়ল বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির সাথে আতাঁত করে গোপনে নিয়োগ দিয়েছে। আমাদের অ্যাডমিট কার্ডও দেওয়া হয়নি। আমরা এ নিয়োগ বাতিল চাই।

এ ব্যাপারে ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল হক মোড়লের কাছে জানতে চাইলে এ প্রতিবেদককে জানান, নিয়োগে কোন প্রকার অনিয়ম বা দূর্ণীতি হয়নি। বিধিমোতাবেক নিয়োগ কার্যক্রম সম্পন্ন করা হয়েছে।

এদিকে উপজেলা শিক্ষা অফিসের একটি সূত্র প্রতিবেদকে জানান, কিছু প্রার্থী ১ম দফায় বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ হওয়ার আবেদন করেছিলেন। পরে স্কুল কর্তৃপক্ষ ২য় দফায় বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে। অভিযোগকারীরা ১ম দফায় আবেদন করলেও পরে আবেদন করেন নি। এদিকে প্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষও ২য় নিয়োগ প্রত্যাশীদের জানান নি। প্রথম বিজ্ঞপ্তিতে আবেদন করা প্রার্থীরা অ্যাডমিট কার্ড না পেয়ে গোপনে নিয়োগের অভিযোগ তুলেছেন।

এনিয়ে নিয়োগ বঞ্চিতরা দাবি করে বলেন, নব নিয়োগপ্রাপ্তদের এম.পি.ও বাতিল করে পুনরায় স্বচ্ছতার ভিত্তিতে নিয়োগ পরীক্ষার মাধ্যমে নিয়োগের দাবি আমাদের।

সাংবাদ পড়ুন ও শেয়ার করুন

আরো জনপ্রিয় সংবাদ

© All rights reserved © 2022 Sumoyersonlap.com

Design & Development BY Hostitbd.Com

কপি করা নিষিদ্ধ ও দণ্ডনীয় অপরাধ।