সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ১০:৩৩ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
মুন্সীগঞ্জে সিরাজদিখানে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে উল্টে গেল মাহিন্দ্রা ,চালক নিহত । মুন্সীগঞ্জে গজারিয়ায় আ”লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষে ৬জন গুলিবিদ্ধসহ আহত ১০ কালিগঞ্জে নওয়াবেঁকী গণমূখী ফাউন্ডেশনের অনিয়ম দূর্নীতি ও গ্রাহক হয়রানীর প্রতিবাদে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত কালিগঞ্জ বিষ্ণুপুরে সার্বজনীন বাসন্তী মন্দিরের প্রসাদ খেয়ে শিশুর মৃত্যু, চিকিৎসাধীন ৭০ জন কালিগঞ্জের পল্লীতে বিনা নোটিশে উচ্ছেদ করা হয়েছে ১৭ টি পরিবারকে রায়পুরায় আ.লীগ এর ৭৫তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত প্রতিরোধহীন বেদনা আওয়ামী লীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে বঙ্গবন্ধুর প্রতি প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা নিবেদন হামিদচর এলাকা থেকে অবশেষে কাজলের লাশ উদ্ধার সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসকের ভ্যান উপহার পেলেন স্বামী পরিত্যক্তা নারী

সুন্দরগঞ্জে কৃষি অফিসারের তদারকিতে সার বিতরণ মনিটরিং ব্যবস্থা জোরদার

রিপোর্টার নামঃ
  • আপডেট সময় সোমবার, ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২
  • ১৭০ বার পঠিত

জয়ন্ত সাহা যতন,স্টাফ রিপোর্টারঃ চলতি রোপা আমন মৌসুমে গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জে কৃষক পর্যায়ে সঠিকভাবে সার বিতরণ করতে বাজার মনিটরিং ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে। সুন্দরগঞ্জ উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবিদ রাশিদুল কবির নিজে সার বিতরণ মনিটরিং ব্যবস্থা তদারকি করছেন।ইতিমধ্যে তিনি সকল উপ-সহকারি কৃষি কর্মকর্তাগণকে রোস্টার ডিউটির মাধ্যমে দোকান মনিটরিং এর ব্যবস্থা করার নির্দেশ দিয়েছেন। উপজেলা কৃষি অফিস সূত্রে জানা যায়,রোপা আমন মৌসুমে কৃষকের সারের চাহিদা মেটাতে সেপ্টেম্বর মাসে ইউরিয়া মোট বরাদ্দ ১০২৭ টন(২০৫৪০ বস্তা)আছে যা উপজেলার ১টি পৌরসভা ও ১৫টি ইউনিয়নের বিসিআইসি ডিলারের মধ্যে এই সার এখনো বিতরণ চলমান রয়েছে।এতে করে কৃষকদের সারের সংকট আর থাকবে না।

বিসিআইসি সার ডিলার আইয়ুব আলী জানান,কৃষক পর্যায়ে ২২ টাকা কেজি দরে ১১০০ টাকায় প্রতিটি বস্তা বিক্রি করছেন তিনি। নির্বিঘ্নে প্রতিটি কৃষক তার চাহিদামত সার পাচ্ছেন।

উপ-সহকারি কৃষি কর্মকর্তা আব্দুর রাজ্জাক, জানান,কৃষি অফিসারের নির্দেশে তারা নিয়মিত বিসিআইসি এবং খুচরা বিক্রেতার দোকানগুলো নজরদারী করছেন।রোস্টার ডিউটির মাধ্যমে তারা এটি করছেন।

উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবিদ রাশিদুল কবির বলেন,প্রতিটি কৃষক যেন খুব সহজেই তার চাহিদামত সার পায় সেইজন্য বাজার মনিটরিং ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে।তাছাড়া জেলা সার ও বীজ মনিটরিং কমিটির সীদ্ধান্ত মোতাবেক সকল বিক্রেতার দোকানে দৃশ্যমান জায়গায় মূল্য তালিকা প্রদর্শন, ক্যাশ ম্যামোর মাধ্যমে বিক্রি, স্টক ও বিতরণ রেজিস্টারে লিপিবদ্ধকরণ সহ কৃষকের মোবাইল নাম্বার সংগ্রহে রাখার নির্দেশনা প্রদান করা হয়েছে।

তিনি আরো জানান, নিয়মিত ভ্রম্যমান আদালতের মাধ্যমে অনিয়মকারীদের শাস্তির আওতায় আনা হচ্ছে। কোথাও কোন অভিযোগ পাওয়া গেলে দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহন করা হচ্ছে। বর্তমান কৃষিবান্ধব সরকার রাসায়নিক সার সহ সকল কৃষি উপকরণ যথাসময়ে এবং ন্যয্য মূল্যে কৃষকের দোরগোড়ায় পৌছাতে বদ্ধপরিকর। সার বিপননে কোন অনিয়ম পরিলক্ষিত হলে ডিলারশিপ বাতিল সহ আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করবেন বলে জানান তিনি।কোথাও কোন অনিয়ম পরিলক্ষিত হলে সুস্পষ্ট অভিযোগ উপজেলা কৃষি অফিসে কর্মকর্তাদের সাথে সরাসরি যোগাযোগ করার জন্য তিনি অনুরোধ করেন।

জানা গেছে, উপজেলায় চলতি রোপা আমন মৌসুমে ২৯ হাজার ২০০ হেক্টর জমিতে আমন ধান উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়। লক্ষ্যমাত্রার ইতোমধ্যে সম্পন্ন হয়ে ৪০০হেক্টার জমিতে রোপা আমন আবাদ বেশি হয়েছে।

সাংবাদ পড়ুন ও শেয়ার করুন

আরো জনপ্রিয় সংবাদ

© All rights reserved © 2022 Sumoyersonlap.com

Design & Development BY Hostitbd.Com

কপি করা নিষিদ্ধ ও দণ্ডনীয় অপরাধ।